May 26, 2022

গণপরিবহন বন্ধে সড়ক অবরোধ করে শ্রমিকদের বিক্ষোভ

চলতি মাসের শুরু থেকেই লকডাউন নিয়ে চলছে নানান কানাঘুষা। কারখানা খোলা রেখে গণপরিবহন বন্ধের প্রতিবাদে মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছেন সাভারের পোশাক শ্রমিকরা। কাজে যাওয়ার সময় যানবাহন না পেয়ে তারা রাস্তায় বিক্ষোভ শুরু করেছেন একপর্যায়।

সোমবার (২৮ জুন) সকাল ৮টা থেকে ৯টা পর্যন্ত ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের সাভারের রেডিও কলোনি ও সাভার বাজার বাসস্ট্যান্ড এলাকায় মহাসড়ক অবরোধ করে তারা বিক্ষোভ করেন। এ সময় পণ্যবাহী যানবাহন আটকা পড়ে। শ্রমিকরা ঘণ্টাব্যাপি ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কটি অবরোধ করে রাখায় জরুরি প্রয়োজনে চলাচল করা অ্যামবুলেন্সসহ সব যানবাহন থেমে থাকে। এতে ওই এলাকায় দীর্ঘ যানবাহনের সারি দেখা যায়।

বিক্ষোভকারীরা বলেন, সকাল থেকে কারখানায় যাওয়ার জন্য রাস্তায় অপেক্ষা করছি। কিন্তু গাড়ির অভাবে আমরা যেতে পারছি না। কারখানা খোলা রেখে গাড়ি বন্ধ করলে কাজে যাব কিভাবে। কারখানা খোলা রাখতে চাইলে আমাদের জন্য গাড়ির ব্যবস্থা করতে হবে।

বিক্ষোভকারী হানিফ বলেন, সকাল ৭টা থেকে কারখানায় যাওয়ার জন্য কলোনিতে আসি। আমার সঙ্গে প্রতিদিনের মতো অন্যান্যরাও কাজে যোগদানের উদ্দেশ্যে আসেন। কিন্তু এক ঘণ্টা পার হলেও কোনো গাড়িতে আমরা যেতে পারিনি। সড়কে যাত্রীবাহী কোনো গাড়ি নেই। আমাদের ৮টার আগে কারখানায় পৌঁছাতে হয়। কারখানায় যেতে না পেরে বাধ্য হয়ে সড়কে নেমেছি।

এর আগে করোনা পরিস্থিতি ধীরে ধীরে অবনতির দিকে যাওয়ায় সোমবার (২৮ জুন) থেকে সীমিত পরিসরে এবং আগামী ১ জুলাই থেকে সাত দিন সারাদেশে ‘সর্বাত্মক লকডাউন’ ঘোষণা করেছে সরকার। এরই ধারাবাহিকতায় আজ থেকে সীমিত পরিসরে লকডাউন শুরু হলে পরিবহন সঙ্কটে পড়ে পোশাক শ্রমিকরা।

সাভার হাইওয়ে থানার পরিদর্শক সাজ্জাদ করিম বলেন, সকাল ৮টা থেকে ৯টা পর্যন্ত শ্রমিকরা মহাসড়ক অবরোধ করে রেখেছিল। তাদের বুঝিয়ে মহাসড়ক থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। বর্তমানে পণ্যবাহী সকল যান চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে আজ সোমবার (২৮ জুন) থেকে দেশজুড়ে সীমিত পরিসরে ‘লকডাউন’ শুরু হয়েছে। বাস্তবায়নের জন্য গণপরিবহন চলাচল একেবারেই বন্ধ থাকবে। বন্ধ থাকবে শপিংমলও অফিস-আদালতে প্রয়োজনীয় সংখ্যক জনবল নিয়ে সীমিত পরিসরে চালু রাখা হয়েছে। লকডাউন বাস্তবায়ন করতে মাঠ পর্যায়ে কঠোর অবস্থানে রয়েছে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।

সোমবার (২৮ জুন) সকাল ৬টা থেকে শুরু হওয়া এই লকডাউন শেষ হবে ১ জুলাই সকাল ৬টায়। এরপর কঠোর লকডাউনে যাবে গোটা দেশ। সেই দিন থেকে মাঠে থাকবে সেনাবাহিনী। রোববার (২৭ জুন) মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে লকডাউন দিয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.